Wednesday , November 14 2018

হাসপাতালের আইসিইউতে কিশোরীকে হাত-পা বেঁধে গণধর্ষণ!

বেসরকারি হাসপাতালের আইসিইউ-র ভিতরে এক কিশোরীকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।







নাক্কারজনক এ ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার ভারতের উত্তর প্রদেশের বরেলিতে। অভিযুক্তদের মধ্যে একজন হাসপাতালেরই কর্মী বলে জানিয়েছেন ভারতীয় সংবাদমাধ্যম।







আজকালের এক প্রতিবেদনের বলা হয়, গত পাঁচ দিন আগে নিজেদের খেতে কাজ করার সময় সাপে কেটেছিল কিশোরীকে। তখন তাকে ওই হাসপাতালে ভর্তি করেছিল তার পরিবার। কিশোরীর শারীরিক অবস্থা সেসময় আশঙ্কাজনক থাকায় তাকে আইসিইউ-তে রাখা হয়েছিল। ওই বিভাগে ওই কিশোরীই একমাত্র রোগিনী ছিল তখন।







তদন্তকারী অফিসার এ সিং জানিয়েছেন, জেনারেল ওয়ার্ডে ভর্তি হওয়ার পর ঠাকুমাকে কিশোরী অভিযোগ করে, এক রাতে সে যখন একা শুয়েছিল তখন হাসপাতালের পোশাকে এক ব্যক্তি সহ মোট পাঁচজন আইসিইউ রুমে ঢুকে তাকে জোর করে ইঞ্জেকশন দিতে যায়। কিশোরী বাধা দিলে তারা তার হাত-পা বেঁধে গণধর্ষণ করে। নাতনির কাছে পুরো ঘটনা শুনে কর্তব্যরত চিকিত্‍সকদের অভিযোগ করেন কিশোরীর ঠাকুমা।







তাঁরা হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি জানালে পর হাসপাতালের তরফে পুলিশে খবর দেওয়া হয়। পুলিশ অভিযুক্ত কর্মীকে গ্রেপ্তার করে মামলা রুজু করে তদন্ত শুরু করেছে।







বাজেয়াপ্ত করেছে আইসিইউ-র সিসিটিভি ফুটেজ। এক আসামীকে জেরা করে বাকি চারজনের সন্ধান শুরু করেছে পুলিশ।