Tuesday , December 11 2018

যে কারণে সংবাদ সম্মেলন স্থগিত জানালেন ওবাইদুল কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, একাদশ জাতীয় সংসদের তফসিল ঘোষণা হবে বলে আগামীকালের সংবাদ সম্মেলন স্থগিত করেছেন প্রধানমন্ত্রী।

বুধবার গণভবনে আওয়ামী লীগের সঙ্গে ২৪ দলের সংলাপ শেষে তিনি এসব কথা বলেন।

সংলাপ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, এটা ছিল ঐতিহাসিক সংলাপ। ইতিহাসে মাইলফলক। রাষ্ট্রের প্রধান এমন সংলাপ করেছেন এমন নজির নেই। দলের অনেকেই সংলাপের বিরুদ্ধে ছিলাম। ১৫ ও ২১ আগস্টের কুশিলবদের সাথে আলোচনা করতে চাইনি। নেত্রী চেয়েছেন বলেই আমরা সার্বিক সহযোগিতা করেছি। মোট ৭০টিরও বেশি জোট ও দল এসেছে এই সংলাপে। এই সংলাপ ইতিবাচক।







তিনি বলেন, শেখ হাসিনা বলেছেন, আলাপ এর জন্য দরজা খোলা। কিন্তু নির্বাচন কেন্দ্রিক সংলাপ এখানেই আনুষ্ঠানিকভাবে শেষ। ব্যক্তিগত বা অন্যান্য বিষয়ে কথা হতে পারে।

ওবায়দুল কাদের আরও বলেন, বেশির ভাগ দলই স্থিতাবিস্থা চেয়েছে। সংসদকে বহাল রেখে নির্বাচন করার পক্ষে। সুষ্ঠু, নিরপেক্ষ ব্যবস্থার পক্ষে সবাই। নির্বাচন কমিশনকে সরকার সাপোর্ট করবে। নির্বাচনকে ঘিরে যত উত্তাপ, তাতে পানি ঢেলে দিয়েছেন শেখ হাসিনা।

তিনি বলেন, ঐক্যফ্রন্ট নির্বাচনে আসবে না, এটা আমরা বিশ্বাস করি না।

সন্ধ্যায় গণভবনের ব্যাঙ্কুয়েট হলে এই সংলাপ অনুষ্ঠিত হয়।







২৪টি রাজনৈতিক দলের সাথে এ সংলাপে ১৪ দলীয় জোটের ২৩ সদস্যের প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা।

রাজনৈতিক দলগুলো হলো— ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক অ্যালায়েন্স, বাংলাদেশ ন্যাশনাল অ্যালায়েন্স (বিএনএ), বাংলাদেশ সোশ্যাল ডেভলপমেন্ট পার্টি (বিএসডিপি), বাংলাদেশ গণতান্ত্রিক ঐক্যফ্রন্ট, ন্যাপ ভাসানি, ন্যাশনাল পিপলস পার্টি (এনপিপি), বাংলাদেশ ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (এনডিএফ), যুক্তফ্রন্ট, গণফ্রন্ট, প্রগতিশীল জোট, বাংলাদেশ গণতান্ত্রিক মুক্তি আন্দোলন (বিজিএমএ), জাতীয় গণতান্ত্রিক জোট (এনডিএ), বাংলাদেশ সত্যবার্তা আন্দোলন, ঐক্য-ন্যাপ, ঐক্যবদ্ধ নাগরিক আন্দোলন, গণতান্ত্রিক বাম ঐক্য, বাংলাদেশ কৃষক শ্রমিক পার্টি (কেএসপি), প্রগতিশীল গণতান্ত্রিক দল (পিডিপি), বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা ঐক্যজোট, বাংলাদেশ গণতান্ত্রিক ঐক্যজোট, তৃণমূল জাতীয়তাবাদী গণতান্ত্রিক আন্দোলন, জাতীয় স্বাধীনতা পার্টি (জেএসপি), বাংলাদেশ জাতীয় পার্টি এবং বাংলাদেশ জাতীয় হিন্দু মহাজোট।