Tuesday , January 22 2019

স্ত্রীর গায়ে অ্যাসিড ঢালল স্বামী ও প্রেমিকা

পরকীয়ায় বাধা দেওয়ায় স্ত্রীর গায়ে অ্যাসিড ঢেলে পুড়িয়ে মারার অভিযোগ উঠল বারুইপুরে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় এখন হাসপাতালে মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করছেন আক্রান্ত মহিলা। শরীরের নব্বই শতাংশই পুড়ে গিয়েছে আনজুরা হালদার নামে ওই মহিলার।

বৃহস্পতিবার রাতে এই ঘটনা ঘটে বারুইপুরে। স্থানীয় ও পুলিস সূত্রে জানা যাচ্ছে গতকাল রাতে অভিযুক্ত খালেক হালদার তার স্ত্রীকে নিয়ে এক মহিলার বাড়িতে যায়। অভিযোগ, ওই মহিলার সঙ্গে খালেকের অবৈধ সম্পর্ক রয়েছে। তা নিয়ে ঝগড়াঝাঁটি লেগেই থাকত ক্যানিংয়ের জীবনতলার বাসিন্দা ওই স্বামী–স্ত্রীর মধ্যে।

আনজুরা ও তাঁর দিদির অভিযোগ, বৃহস্পতিবার রাতে খাওয়াদাওয়ার পর সবাই শুতে চলে যায়। শেষরাতে আনজুরার কাছ থেকে তার সন্তানকে সরিয়ে নিয়ে গিয়ে তার গায়ে অ্যাসিড ঢেলে দেওয়া হয়।

আহত আনজুরাকে সঙ্গেসঙ্গে নিকটবর্তী একটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখান থেকে তাকে ক্যানিং হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানকার বার্ন অ্যান্ড ইনজুরি ওয়ার্ডে ভর্তি রয়েছেন আনজুরা। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, আনজুরার দেহের নব্বই শতাংশই পুড়ে গিয়েছে।

আক্রান্ত আনজুরা জানিয়েছেন, স্বামীর সঙ্গে এক মহিলার অবৈধ সম্পর্ক রয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে ওরা আমার গায়ে অ্যাসিড ঢেলে পুড়িয়ে দিয়েছে। অন্যদিকে, আনজুরার দিদি বলেন, ওর স্বামী ওকে খাইয়ে দাইয়ে গভীর রাতে ওর গায়ে অ্যাসিড ঢেলে দেয়।