Tuesday , January 22 2019

অসুস্থ শরীরেই পরিচালনা করবেন কাজী হায়াৎ

যুক্তরাষ্ট্রে চিকিৎসা নিচ্ছেন বরেণ্য পরিচালক কাজী হায়াৎ। অন্যদিকে শুটিংয়ের জন্য প্রস্তুত তাঁর ৫০তম চলচ্চিত্র ‘বীর’। আগামী ১০ তারিখ থেকে ছবির শুটিং শুরু হওয়ার কথা। যেহেতু তিনি দেশে নেই, তাই শোনা যাচ্ছিল কাজী হায়াতের হয়ে ছবিটি পরিচালনা করবেন আরেক সফল নির্মাতা শাহিন সুমন। তবে খোদ শাহিন সুমন জানালেন, তিনি নন, অসুস্থ শরীর নিয়ে কাজী হায়াৎই পরিচালনার কাজটি করবেন। আর শাহিন সুমন কাজ করবেন সহযোগী হিসেবে।

শাহিন সুমন এনটিভি অনলাইনকে বলেন, “অনেকেই মনে করছেন, আমি কাজী হায়াৎ স্যারের হয়ে ‘বীর’ ছবিটি পরিচালনা করব। আসলে বিষয়টি এমন নয়। ছবিটি অসুস্থ শরীর নিয়েই পরিচালনা করবেন কাজী হায়াৎ। আমি সহযোগী পরিচালক হিসেবে ছবির সঙ্গে থাকব। এবং ছবিটি শেষ করে দেবো।”

কাজী হায়াৎকে নিয়ে শাহিন সুমন বলেন, ‘কাজী হায়াৎ স্যার অনেক গুণী নির্মাতা। আমাদের সিনিয়র, সেই হিসেবে শ্রদ্ধা-ভালোবাসা থেকেই আমি কাজটির সঙ্গে থাকতে চাই। আমি চাই স্যার সুস্থ হয়ে দেশে ফিরে আশুক, তারপর তিনি সেটে বসে থাকুক। শটগুলো আমাকে বুঝিয়ে দিক, উনি কী চাচ্ছেন। সেই অনুযায়ী আমি কাজটি করি। এতে করে আমার ঝুলিতে অভিজ্ঞতা সঞ্চয় হবে বলে আমি মনে করি।’

কাজী হায়াতের প্রধান সহকারী কাজী মনির বলেন, ‘গত ২ তারিখ হায়াৎ স্যার যুক্তরাষ্ট্রের হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। দু-একদিনের মধ্যে উনার অপারেশন হওয়ার কথা রয়েছে। সে ক্ষেত্রে আমাদের ছবির শুটিং ১০ তারিখ না হয়ে কিছুদিন পেছাতে হতে পারে। হাসপাতাল থেকে হায়াৎ স্যার সবার কাছে দোয়া চেয়েছেন। আপনারা সবাই উনার জন্য দোয়া করবেন।’

‘বীর’ ছবিতে জুটি বেঁধে অভিনয় করছেন শাকিব খান ও শবনম বুবলী। শাহিন সুমন পরিচালিত ‘একটু প্রেম দরকার’ ছবির কাজ নিয়ে এখন তাঁরা ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন।

চলতি বছরের শুরুতে নিউইয়র্কের মাউন্ট সিনাই হাসপাতালে একবার চিকিৎসা নেন কাজী হায়াৎ। সম্প্রতি আবারও অসুস্থ বোধ করছিলেন তিনি। ২০০৪ সালে হৃৎপিণ্ডে দুটি রিং বসানো হয়েছিল প্রখ্যাত এই চলচ্চিত্র নির্মাতার। ২০০৫ সালে ওপেন হার্ট সার্জারি করা হয় কাজী হায়াতের। এরপর গত বছরের জানুয়ারিতে আবারও হৃৎপিণ্ডে সমস্যা দেখা দিলে বরেণ্য এই নির্মাতা প্রধানমন্ত্রীর কাছে সাহায্যের জন্য আবেদন করেন। তারপর চলতি বছর প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে ১০ লাখ টাকা অনুদান পান কাজী হায়াৎ।