আইপিএল নিয়ে ভয়ংকর তথ্য ফাঁস!

দাউদের এজেন্টরা বুকি এবং সেলিব্রিটিদের মধ্যে যোগাযোগ করিয়ে দিত। ভারতে কুখ্যাত বুকি সোনু জালান যে বেটিং সিন্ডিকেট চালাচ্ছিল সেটি দাউদের বেটিং র‌্যাকেটের একটি অংশ বলে জানিয়েছেন তদন্তকারীরা।

পাকিস্তানে বসে দাউদ তা পরিচালনা করেন। আর বিশ্বের যেখানে যে বিষয়ে বেটিং হয় তা দেখাশোনার কাজ করে এথসাম এবং ডক্টর নামে দাউদের দুই সহযোগী। আইপিএল বেটিং চক্রের তদন্তে উঠে এল এমন চাঞ্চল্য কর তথ্য।

সোনু জালানকে জেরা করে তদন্তকারীরা জানতে পেরেছে, এই বেডিং সাম্রাজ্যের একাধিক কন্ট্রোলারকে। জুনিয়র কলকাতা নামে যে বুকির সন্ধান চালাচ্ছেন তদন্তকারীরা। সে থাইল্যান্ড থেকে বেটিং সিন্ডিকেট দেখাশোনা করে। দুবাইয়ে রয়েছে মিনির খান নামে এক বুকি। সে বোরিভেলির বাসিন্দা।

আহমেদাবাদে কাজ করে কমল মালা নামে এক বুকি। মালাডে বেটিং র‌্যাকেট চালায় তন্না নামে একজন। এরা সকলেই তাঁদের বেটিং দুবাইয়ে থাকা অনিল কোঠারি নামে এক বুকিকে সরবরাহ করে। আর কোঠারিকে পরিচালনা করে সরাসরি দাউদের এজেন্ট এথেসমা এবং ডক্টর। তারা পাকিস্তানে বসেই কাজ করে।